• সোমবার   ১৫ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ৩০ ১৪২৯

  • || ১৬ মুহররম ১৪৪৪

ঝালকাঠি আজকাল

মানহানির মামলায় জিতলেন জনি ডেপ, অ্যাম্বারকে জরিমানা

ঝালকাঠি আজকাল

প্রকাশিত: ২ জুন ২০২২  

সাবেক স্ত্রী অ্যাম্বার হার্ডের বিরুদ্ধে করা মানহানির মামলায় জয় পেলেন আমেরিকান অভিনেতা জনি ডেপ। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় অ্যাম্বারকে দেড় কোটি ডলার জরিমানার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। খবর বিবিসি।

খবরে বলা হয়েছে, অ্যাম্বার হার্ডের এই রায়ের বিরুদ্ধে এখনও আপিল করার সুযোগ রয়েছে। তবে তিনি আপিল করবেন কিনা বিষয়টি এখনও পরিষ্কার নয়।

আদালতের জুরি সদস্যরা জানিয়েছেন, অ্যাম্বার সাংসারিক অশান্তির কারণ হিসেবে জনির বিরুদ্ধে যে কয়েকটি অভিযোগ এনেছিলেন তা ‘মিথ্যা এবং অবমাননাকর’। একারণে অ্যাম্বারকে দেড় কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি জনির বিরুদ্ধে এ ধরনের অভিযোগ আনার পেছনে অ্যাম্বারের ‘অসৎ উদ্দেশ্য’ ছিল বলেও আদালত জানিয়েছেন।

২০১১ সালে ‘দ্য রাম ডায়রি’ চলচ্চিত্রে সহশিল্পীর অভিনয়কালে ডেপের প্রেমে পড়েন অ্যাম্বার হার্ড। ৩০ বছর অ্যাম্বার ২০১৫ সালে বিয়ে করেছিলেন ৫২ বছরের জনি ডেপকে। কিন্তু ১৫ মাসের মাথায় বিবাহ বিচ্ছেদ চেয়ে আদালতের দ্বারস্থ হন হার্ড। টেক্সাসের এই অভিনেত্রী ‘অপরিবর্তনশীল মতবিরোধকে’ কারণ দেখিয়ে লস অ্যাঞ্জেলেসের সুপিরিয়র কোর্টে বিবাহ বিচ্ছেদের আবেদন করেন।

২০১৬ সালের মে মাসে আনুষ্ঠানিক বিচ্ছেদের আবেদন করেন হলিউড তরকা দম্পতি জনি ডেপ ও আম্বার হার্ড। এর প্রায় দুই বছর পর ওয়াশিংটন পোস্ট–এ একটি উপসম্পাদকীয় লেখেন আম্বার হার্ড। সেখানে তিনি অভিযোগ করেন, জনি তাকে শারীরিক, মানসিক ও মৌখিকভাবে নির্যাতন করেছেন। অবশ্য ডেপ সেসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন। পরে সাবেক স্ত্রীর নামে ৫০ মিলিয়ন ডলারের মানহানির মামলা করেন জনি। হার্ডও উল্টো ১০০ মিলিয়ন ডলার মানহানির মামলা করেন জনির বিরুদ্ধে।

পাল্টাপাল্টি এই মামলার শুনানিতে কাদা ছোড়াছুড়ি হয়েছে বিস্তর। শুনানি অনুষ্ঠানও সরাসরি সম্প্রচারিত হয়েছে, যা প্রত্যক্ষ করে উত্তাল ছিল দুই জনপ্রিয় অভিনেতা-অভিনেত্রীর ভক্তরাও। নানান নাটকীয়তার পর গত মঙ্গলবার মামলাটির চূড়ান্ত শুনানি শুরু হয়। তিন দিন ধরে সাত সদস্যের জুরি প্রায় ১৩ ঘণ্টার উপর শুনানির পর এই রায় ঘোষণা করলেন।

ঝালকাঠি আজকাল