• শুক্রবার   ৩০ জুলাই ২০২১ ||

  • শ্রাবণ ১৪ ১৪২৮

  • || ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪২

ঝালকাঠি আজকাল

আবু ত্ব-হার এই গুম নাটকের কারণ কি?

ঝালকাঠি আজকাল

প্রকাশিত: ১৯ জুন ২০২১  

নিখোঁজের আট দিন পর ইসলামী বক্তা মো. আফছানুল আদনানের (আবু ত্ব-হা মোহাম্মদ আদনান) খোঁজ পাওয়া গেছে। রংপুর শহরের বাবু খা এলাকার শ্বশুরবাড়িতে শুক্রবার জুমার নামাজের পর তার খোঁজ মেলে। জানা গেছে, তৃতীয় স্ত্রীর বাড়িতে আত্মগোপনে ছিলেন আবু ত্ব–হা। এদিকে তার সঙ্গে নিখোঁজ হওয়া অপর তিনজনকেও একই সময় নিজ নিজ বাড়িতে পাওয়া গেছে।

আদনানের মা আজেরা বেগম বলেছেন, ছেলের সন্ধান পেয়েছেন তিনি।

রংপুর মহানগর পুলিশের কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুর রশিদ, শুক্রবার দুপুর পৌনে তিনটার দিকে নগরের বাবুখা মাস্টারপাড়া এলাকায় আবু ত্ব–হার শ্বশুরবাড়ি থেকে তাকে থানায় নেওয়া হয়। এ সময় ত্ব–হার মাও তার সঙ্গে ছিলেন।

সূত্র জানায়,ইসলামী বক্তা আবু ত্ব–হা মধ্যপ্রাচ্যের জঙ্গিগোষ্ঠী আল কায়েদা এবং আইএসের মতাদর্শের অনুসারী। দীর্ঘদিন ধরে ফেসবুক, ইউটিউবে জঙ্গি মতাদর্শ প্রচার করে আসছেন তিনি। কিন্তু অনেক দিন এসব জঙ্গিবাদি মতাদর্শ প্রচার করে আসলেও তেমন প্রচার পাননি তিনি। তাই নাটক সাজিয়ে আলোচনায় আসার পরিকল্পনা করেন। সেই পরিকল্পনা অনুসারে বৃহস্পতিবার (১০ জুন) ঢাকার একটি মসজিদে খুতবা দেওয়ার কথা বলে রংপুরের বাসা থেকে বের হন। আবু ত্ব–হার সঙ্গে ছিলেন তাঁর দুই সঙ্গী আবদুল মুহিত ও ফিরোজ। এ ছাড়া গাড়িচালক হিসেবে ছিলেন আমির উদ্দিন ফয়েজ। এরপর
বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২টা ৩৬ মিনিটে আদনানকে তার স্ত্রী ফোন দিলে তিনি বলেন, তিনি এখন ঢাকার গাবতলীতে আছেন। এরপরই আবু ত্ব–হা তার মোবাইল ফোন বন্ধ করে দেন। সেইসাথে তার সঙ্গীরাও ফোন বন্ধ করে দেন। ফোন বন্ধ করে তারা আবার গাবতলী থেকে একই মাইক্রোবাসে করে রংপুরে ফিরে যান। এরপর তৃতীয় স্ত্রীর সাথে একান্তে সময় কাটাতে থাকেন। কিন্তু বাইরে প্রচার চলতে থাকে আবু ত্ব–হাকে গুম করা হয়েছে।

জানা গেছে, আবু ত্ব–হার সাথে হেফাজতে ইসলাম, জামায়াতে ইসলামী এবং বিএনপির অনেক নেতার পরিচয় আছে। তারা বিষয়টি নিয়ে ফেসবুকে এবং অনলাইনে অপপ্রচার শুরু করে। সরকারকে বিপদে ফেলতে চিহ্নিত দেশবিরোধী গোষ্ঠী দেশ-বিদেশ থেকে অনলাইনে অপপ্রচার শুরু করে। এরাই আবু ত্ব-হাকে সরকার গুম করেছে বলে অপপ্রচার চালাতে থাকে। আবু ত্ব-হার স্ত্রী সাবিকুন নাহারের সংবাদ সম্মেলন আয়োজন করার ব্যবস্থা করে দেয় বিএনপি-জামায়াতের কয়েক নেতা।

সূত্র জানায়, আবু ত্ব–হা নিজের জনপ্রিয়তা বাড়াতে এবং সরকারকে বিপদে ফেলতে বিএনপি-জামায়াতের পরিকল্পনা অনুসারে শ্বশুরবাড়িতে আত্মগোপন করেন। কিন্তু গোয়েন্দা সংস্থার অবিরত চেষ্টার ফলে একপর্যায়ে শুক্রবার তার সন্ধান পাওয়া যায়। এর ফলে আবু ত্ব–হাকে নিয়ে বিএনপি-জামায়াতের পরিকল্পনা ভেস্তে যায়।

বিশ্লেষকরা জানান, একটি চিহ্নিত মহল সরকারের উন্নয়নকাজের বিরোধিতা করতে সবসময়ই গুজব ছড়ায়। এছাড়াও সরকারকে বিপদে ফেলতে দেশ-বিদেশে স্বাধীনতাবিরোধী শক্তি সক্রিয় রয়েছে। এরা যে কোন ঘটনা ঘটলেই সরকারের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালিয়ে জনগণকে খেপিয়ে তোলার চেষ্টা করে। কিন্তু দেশের জনগণ এই অপপ্রচারে কান না দেওয়ায় আগের মত এবারও আবু ত্ব–হার গুম নাটকের ষড়যন্ত্র ব্যর্থ হয়ে গেল।

ঝালকাঠি আজকাল