• মঙ্গলবার   ২৬ জানুয়ারি ২০২১ ||

  • মাঘ ১৩ ১৪২৭

  • || ১২ জমাদিউস সানি ১৪৪২

ঝালকাঠি আজকাল

প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে ঘর পাচ্ছেন ৪৭৪টি ভূমিহীন পরিবার

ঝালকাঠি আজকাল

প্রকাশিত: ২৮ ডিসেম্বর ২০২০  

ঝালকাঠি প্রতিনিধি: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষ্যে ঝালকাঠি জেলায় পথেম ধাপে  প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে ঘর পাচ্ছেন ৪৭৪টি ভূমিহীন পরিবার। জমি নাই, ঘর নাই’ এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে  ‘ক’ শ্রেণিতে অন্তর্ভুক্ত রয়েছে, ঝালকাঠি জেলা সদর উপজেলায় ৫১টি,নলছিটিতে ৪০টি,কাঠালিয়ায় ৫০টি ও রাজাপুরে ৩৩৩টি পরিবার।

মোট তালিকা সংগ্রহ করেছে ১২২১টি পরিবারের। যার মধ্যে সদর উপজেলায় রয়েছে ১৮১, নলছিটি ৩৮৫, রাজাপুর ৬০১ ও কাঠালিয়ায় ৫৪টি। মুজিববর্ষ উপলক্ষে সম্পূর্ণ সরকারি অনুদানে ভূমিহীন পরিবার গুলোকে এসব সেমিপাকা ঘর মির্মাণ করে দেয়া হচ্ছে। আগামী বছরের শুরুতেই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে সারা দেশে ভূমিহীন পরিবারের মাঝে এসব ঘর হস্তান্তর করবেন। সে জন্য দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে এসব ঘরের নির্মাণ কাজ।

কয়েকটি ক্যাটাগরিতে প্রকৃত ভূমিহীন পরিবার শনাক্ত করণের পাশাপাশি এসব ঘর নির্মাণে যেন কোন প্রকার অনিয়ম, দুর্নীতি না হয় সে বিষয়টি তদারকি করছে উপজেলা প্রশাসন। সম্প্রতি জেলা প্রশাসকও নির্মানাধীন এসব ঘর সরেজমিনে পরিদর্শন করেছেন। এছাড়া গৃহহীনদের ঘর নির্মান প্রকল্প পরিদর্শনে করেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও পরিচালক-২ সাবিহা ইয়াসমিন।

যার নির্মাণ কাজ চলমান আছে। প্রতিটি ঘর নির্মাণে বরাদ্ধ দেয়া হয়েছে ১লাখ ৭১হাজার টাকা। যা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তারা সার্বক্ষনিক তদারকি করছেন। জেলা প্রশাসক মোঃ জোহর আলী এসব নির্মাণ কাজের মান অগ্রগতি সম্পর্কে তিনি সন্তোস প্রকাশ করেছেন।

ঝালকাঠি সদর উপজেলা সহকারি কমিশনার ভূমি জহিরুল ইসলাম বলেন, ঝালকাঠি জেলা সদরে ১৮১টি পরিবারের তালিকা দেয়া হয়েছে। এদের মধ্যে একেবারে ভূমিহীন যাদের একখন্ড জমিও নেই। অন্যের বাড়িতে আশ্রিত রয়েছেন এমন পরিবার গুলোকে ‘ক’ শ্রেণীভূক্ত করে খাস জমিতে সরকারি অর্থায়নে সেমিপাকা ঘর নির্মাণ করে দেয়া হচ্ছে। পরের ধাপে জমি বাছাই করে বাকি পরিবার গুলোকে এসব ঘর নির্মাণ করে দেয়া হবে।

ঝালকাঠি সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সাবেকুন নাহার বলেন, আমাদের ঝালকাঠি সদর উপজেলায় প্রধানমন্ত্রীর প্রথম ধাপ প্রকল্প ‘জমি নাই, ঘর নাই’ যারা ভূমিহীন তাদের জন্য প্রথম ধাপে ৫১টি ঘরের কার্যক্রম চলমান আছে। আমাদের এ কার্যক্রম দ্রুত গতিতে এগিয়ে চলছে। প্রশাসনের পক্ষ থেকে যেকোন ধরনের দুর্নীতি অনিয়ম সঠিকভাবে পর্যবেক্ষন করা হচ্ছে। এখানে কোন ধরনের দুর্নীতির সুযোগ নেই। আর কোন ধরনের দুর্নীতির খবর পাওয়া গেলে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। মুজিবর্ষ উপলক্ষে সরকার আগামী জানুয়ারিতে আনুষ্ঠানিকভাবে ভূমিহীন পরিবারের কাছে এসব ঘর হস্তান্তর করবেন।

ঝালকাঠি আজকাল