• শনিবার   ৩০ মে ২০২০ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

  • || ০৭ শাওয়াল ১৪৪১

ঝালকাঠি আজকাল
১৬৮

ইতালিতে করোনায় ৩৪ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৬৯৪

ঝালকাঠি আজকাল

প্রকাশিত: ২ মার্চ ২০২০  

ইউরোপের বিভিন্ন দেশে ছড়িয়ে পড়েছে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস। তবে এর মধ্যে ইতালির অবস্থা সবচেয়ে ভয়াবহ। দেশটিতে করোনা আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা বেড়েই চলেছে।

রোববার (১ মার্চ) দেশটির নাগরিক সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ জানায়, ইতালিতে এ পর্যন্ত করোনাভাইরাসে ৩৪ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। আর এতে আক্রান্ত হয়েছে ১৬৯৪ জন।

ইতালির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বলছে, শুক্রবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) পর্যন্ত দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ছিল ৮৮৮। আর শনিবার মৃতের সংখ্যা ৮ থেকে বেড়ে ২৯ জনে দাঁড়ায়। রোববার আরও ৫ জনের মৃত্যুর খবর নিশ্চিত করেছে দেশটির নাগরিক সুরক্ষা কর্তৃপক্ষ।

ব্রিটিশি সংবাদমাধ্যম বিবিসি বলছে, ইউরোপের মধ্যে ইতালিতেই করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব সবচেয়ে মারাত্মক। ইতালির পরিস্থিতি দেখে প্রতিবেশী সব দেশ ইতোমধ্যে সীমান্ত বন্ধ করেছে।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের হুবেই প্রদেশে প্রথম করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত করা হয়। এরপর থেকে বিশ্বের ৫০টিরও বেশি দেশে এ করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়েছে। সেই সঙ্গে বাড়ছে এ ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা। বিশ্বব্যাপী করোনাভাইরাসে এখন পর্যন্ত ২ হাজার ৯৭৯ জনের মৃত্যুহয়েছে। আক্রান্ত হয়েছে ৮৬ হাজার ৫২৯ জন। এছাড়া আক্রান্তদের মধ্যে ৪১ হাজার ৯৫৮ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছে।

শুধুমাত্র চীনের মূল ভূখণ্ডেই করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৭৯ হাজার ৮২৪ জন। অপরদিকে, মৃত্যু হয়েছে ২ হাজার ৮৭০ জনের। দক্ষিণ কোরিয়ায় এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৩ হাজার ১৫০ এবং মৃত্যু হয়েছে ১৭ জনের।

ইরানে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৫৯৩ এবং মৃত্যু ৪৩ জনের। জাপানে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ২৪২ এবং মৃত্যু ৫। সিঙ্গাপুরে এখন পর্যন্ত ১০২ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। ফ্রান্সে এই ভাইরাসে আক্রান্ত ১শ জন এবং মৃত্যু হয়েছে দুই জনের।

হংকংয়ে এই ভাইরাসে আক্রান্ত ৯৫ এবং মৃত্যু ২। যুক্তরাষ্ট্রে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৬২ এবং মৃতের সংখ্যা ১। জার্মানিতে এই ভাইরাসে আক্রান্ত ৫৭, স্পেনে ৪৬, কুয়েতে ৪৫, থাইল্যান্ডে ৪২, তাইওয়ানে আক্রান্ত ৩৯ এবং মৃত্যু ১। বাহরাইনে আক্রান্তের সংখ্যা ৩৮, মালয়েশিয়ায় ২৫, অস্ট্রেলিয়ায় ২৪, যুক্তরাজ্যে আক্রান্তের সংখ্যা ২৩ এবং মৃত্যু ১।

মধ্যপ্রাচ্যের দেশ আরব আমিরাতে এখন পর্যন্ত ১৯ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। ভিয়েতনামে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১৬, কানাডায় ১৪, ইরাকে ১৩, সুইডেনে ১৩, ম্যাকাউতে ১০, সুইজারল্যান্ডে ১০, লেবাননে ৭, ক্রোয়েশিয়ায় ৬, নেদারল্যান্ডসে ৬, নরওয়েতে ৬, ওমানে ৬, অস্ট্রিয়ায় ৫, ইসরায়েলে ৫, রাশিয়ায় ৫, গ্রিসে ৪, মেক্সিকোতে ৪, পাকিস্তানে ৪ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

অপরদিকে ফিলিপাইনে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৩ এবং মৃত্যু হয়েছে একজনের। ফিনল্যান্ডে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ৩, ভারতে ৩, রোমানিয়ায় ৩, ডেনমার্কে ২, জর্জিয়ায় ২, ইকুয়েডরে এই ভাইরাসে আক্রান্ত ১ এবং মৃত্যু হয়েছে ১ জনের।

আফগানিস্তানে এই ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ১, আলজেরিয়ায় ১, আজারবাইজানে ১, বেলারুসে ১, বেলজিয়ামে ১, ব্রাজিলে ১, কম্বোডিয়ায় ১, মিসরে ১, এস্তোনিয়ায় ১, আইসল্যান্ডে ১, আয়ারল্যান্ডে ১, লিথুনিয়ায় ১, মোনাকোতে ১, নেপালে ১, নিউজিল্যান্ডে ১, উত্তর মেসিডোনিয়ায় ১, নাইজেরিয়ায় ১, কাতারে ১ এবং শ্রীলঙ্কায় একজন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে।

ঝালকাঠি আজকাল
আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর